WB Ration Big Update

WB Ration Big Update: করোনা মহামারীর কারণে গোটা দেশের অর্থনৈতিক অবস্থা বেশ শোচনীয় হয়ে পড়েছিল। মহামারীর কবলে পড়ে গোটা দেশে কাজ হারিয়েছিলেন বহু মানুষ। তাই করোনা অভিমারির সময় থেকে সাধারণ মানুষের আর্থিক দুরাবস্থার কথা ভেবে দেশের মানুষদের বিনামূল্যে রেশন সামগ্রী দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। কেন্দ্র ও রাজ্য দুই সরকারের যৌথ এবং মিলিত প্রয়াসে গত দু বছর থেকে চাল, গম একেবারে বিনামূল্যে পেয়েছেন গোটা দেশের মানুষ।

বহু প্রতীক্ষিত মামলার রায়দান হল! মানিক ভট্টাচার্যের আবেদন ও ২৭৩ জনের বাতিল চাকরি ফেরানোর আর্জি খারিজ

দেশের কোনও মানুষ যাতে অতিমারীর কারনে না খেতে পেয়ে মারা যান তার জন্য রেশন থেকে বিনামূল্যেই খাদ্য সামগ্রী দেওয়া শুরু হয়। সেই অনুযায়ী দেশে কোটি কোটি মানুষকে এই ফ্রি রেশন দেওয়া হয়েছে। মহামারী থেকে শুরু করে আজ পর্যন্ত গোটা দেশের মানুষের স্বার্থে কেন্দ্র রাজ্য যৌথ উদ্যোগে বিনামূল্যে রেশন (RATION) ব্যবস্থা চালু রয়েছে। গ্যাঁটের কড়ি অর্থাৎ পয়সা না খসিয়েই রাজ্যের পাশাপাশি গোটা দেশের মানুষ বিগত কয়েক বছর ধরে রেশন থেকে বিনামুল্যে পাচ্ছেন চাল-গম- আটা ইত্যাদি।

Lottery Price Winning Tricks: এবার এই তিনটি পদ্ধতিতে লটারি কাটলেই পুরস্কার জিতবেন

তবে করোনার প্রাদুর্ভাব এখন অনেকটাই কম। পাশাপাশি লকডাউন অবস্থা কাটিয়ে উঠে দেশ এখন সচল। তাই এই পরিস্থিতিতে স্বভাবতই সরকার ফ্রি রেশন বন্ধ করতে চাইছে। হ্যা এবার ফ্রীতে খাদ্য দ্রব্য পাওয়ায় ক্ষেত্রে সরকার ইতি টানতে চলেছে। ফলে এবার থেকে সরকারি ভাবে বেঁধে দেওয়া নির্দিষ্ট মুল্য দিয়েই দেশের প্রতিটি গ্রাহককে রেশন থেকে চাল-গম- আটার মতো নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্য দ্রব্য তুলতে হবে।

Class VIII Scholarship: অষ্টম শ্রেণীতে উত্তীর্ণদের জন্য মাসিক ১০০০ টাকা করে দেওয়া হবে, আবেদন সহ বিস্তারিত জানুন

সম্প্রতি এ বিষয়ে সরকারি তরফে সিদ্ধান্তের পাশাপাশি এক প্রস্থ আলাপ আলচনাও হয়ে গিয়েছে। এ বিষয়ে খাদ্য দফতরের এক আধিকারিকের কথা অনুযায়ী বিশেষ সুত্র মারফৎ জানা গিয়েছে চলতি মাসেই গ্রাহকরা বিনামূল্যে রেশন পাবেন। তবে এবার গ্রাহকদের জন্য স্বল্প মূল্যে রেশন ব্যবস্থা চালু করতে চাইছে দেশের প্রতিটি রাজ্যের সরকার।

অর্থাৎ সেপ্টেম্বর মাস থেকে গ্রাহকদের প্রতি কেজি চালের জন্য ৩ টাকা এবং প্রতি কেজি গমের জন্য ২ টাকা করে দিতে হবে। পাশাপাশি ওই আধিকারিক জানিয়েছেন চলতি মাসে রেশনে গ্রাহকদের ছোলা, তেল এবং লবণও দেওয়া হবে। তবে এই খাদ্য পন্যগুলি ধারাবাহিক ভাবে চালানো হবে কিনা সে বিষয়ে স্পষ্ট করে কিছু জানাননি ওই আধিকারিক। প্রায় ৮০ কোটি মানুষ এই প্রধানমন্ত্রী ফ্রি রেশন পাচ্ছেন। বিনামুল্যে রেশন বন্ধ হয়ে গেলে উপভোক্তার উপর নানান সমস্যা সৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

WB Volunteer Recruitment 2022: চাকরিপ্রার্থীদের জন্য সুখবর!দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর রাজ্যে আবারো প্রচুর ভলেন্টিয়ার নিয়োগ

এই ফ্রি রেশনের ফলে কেন্দ্রীয় সরকারের উপর এক বিশাল ব্যায়ের বোঝা সৃষ্টি হয়েছে। এই প্রকল্প যদি আরও বাড়ানো হয় তবে বিপুল পরিমানে আর্থিক চাপে পড়বে কেন্দ্রীয় সরকার। তাই অবিলম্বে বিনামূল্যে প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যাণ অন্ন যোজনা বন্ধের দিকে ভাবছে মোদি সরকার। করোনা পরিস্থিতি চলতি বছরের শুরু থেকে বেশ কিছুটা নিয়ন্ত্রণ হওয়ায় ধীরে ধীরে ভেঙে পড়া অর্থনীতি চাঙ্গা হওয়ার পাশাপাশি সকলেই কাজে যোগ দিতে শুরু করেছে (WB Ration Big Update) ।

স্বভাবতই বর্তমান সময়ে আর্থিক অনটন থেকে বেশ কিছুটা স্বাবলম্বী হয়েছেন গোটা দেশের পাশাপাশি এ রাজ্যের মানুষও। তাই বিনামূল্যে রেশন প্রকল্প বন্ধ করা হলেও কোনো সমস্যা হওয়ার সম্ভাবনা হবে না বলেই মনে করছেন অন্ত্রমন্ত্রক। তবে সরকারের তরফে এ বিষয়ে এখনও কোন নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়নি। খুব শীঘ্রই সরকারের তরফ থেকে অফিসিয়াল নির্দেশ আসতে চলেছে।

By Probir Biswas

আমি প্রবীর বিশ্বাস Webscte.in এ সকল প্রকারের স্কলারশিপ সহ বিভিন্ন জানা-অজানা তথ্য, সাথে টেক নিউজ, বিনোদন, ব্যবসা-বানিজ্যের ওপরও বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ আপডেট দিয়ে থাকি, ধন্যবাদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.