DA Case Update

DA Case Update: যাত্রা শুরু হয়েছিল ২০১৬ সালে। একে একে পেরিয়ে গেল ৮ বছর। অর্ডারের ওপরে পাল্টা অর্ডার চলছেই। মাঝে মাঝে কাজ খুব দ্রুত বেগে এগিয়েছে, আবার কখন বা তা হয়েছে স্তিমিত। পশ্চিমবঙ্গের রাজ্য সরকারি কর্মীরা তাদের একমাত্র লক্ষ্যের দিকে যতই এগিয়ে যাচ্ছে, লক্ষ্য যেন ততই নিজের অবস্থানকে বার বার একটার পর একটা মেঘের আড়ালে ঢেকে রাখছে।

গত ২০ মে কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি হরিশ ট্যান্ডন ও বিচারপতি রবীন্দ্রনাথ সামন্তের ডিভিশন বেঞ্চ নির্দেশ দিয়েছিল তিন মাসের মধ্যে সরকারি কর্মীদের বকেয়া মহার্ঘ ভাতা মিটিয়ে দিতে হবে।একই সঙ্গে মন্তব্য করা হয়েছিল, ডিএ হল একজন কর্মচারীর মৌলিক অধিকার। সেই সময় প্রায় শেষ হতে কয়েকদিন বাকি আছে। এরই মধ্যে ফের কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হল রাজ্য।১৬ই আগস্ট ২০২২ তারিখে রাজ্য সরকার ডিভিশন বেঞ্চে অনলাইনে রিভিউ পিটিশন দাখিল করেছে।

প্রতিদিন ১ টাকা করে জমালেই পেয়ে যেতে পারেন ১৫ লক্ষ টাকা জানেন কি?

কলকাতা হাইকোর্ট রাজ্যের আবেদন গ্রহণ করেছে। ডিএ মামলায় (DA Case Update ) রাজ্য সরকারের রিভিউ পিটিশন গতকাল গ্রহণ করল আদালত। আগামী ২৯ আগস্ট বিচারপতি হরিশ টন্ডন ও বিচারপতি রবীন্দ্রনাথ সামন্তের ডিভিশন বেঞ্চে রিভিউ পিটিশনের শুনানি হবে। এবারে কোর্ট বিচার করে দেখবে যে এই রিভিউ পিটিশনের কততা মেরিট আছে।

সেই অনুযায়ী তারা বিচার বিবেচনা করবে। যদি এই রিভিউ পিটিশন খারিজ হবার পরে রাজ্য সরকার আবার সুপ্রিম কোর্টে আবেদন করে তবে সেক্ষেত্রে তেমন কিছুই ফল পাবে না রাজ্য সরকার- এমনটাই মনে করছে রাজ্য সরকারি কর্মীরা। কারণ এখানে রাজ্য বিদ্যুৎ দপ্তরের ক্ষেত্রে ঘটে যাওয়া ঘটনা সকলেরই জানা।

Dearness Allowance: রাজ্য সরকারি কর্মচারীরা আশাবাদী আইনি পথে জয় আসবেই,৩১% বকেয়া DA

রাজ্য সরকারের তরফ থেকে এতদিন এই বিষয়ে ( DA Case Update) যতবারই রিভিউ পিটিশন দাখিল করা হয়েছে তা প্রতিবারই খারিজ হয়ে গেছে। কিম্বা রাজ্য জিততে পারেনি। অপর দিকে যেটা জানা গেছে যে ১৯শে আগস্ট, ২০২২ এরপরই পিটিশনারেরা তথা কনফেডারেশন অফ স্টেট গভঃ এমপ্লইস এবং ইউনিটি ফোরাম প্রস্তুতি নিয়েছেন কন্টেম্পট মামলা করার জন্য।

ডিএ মামলায় কেসের বিবরণ দেখলে জানা যায় যে কেস ফিলিং নাম্বার- 160 / 2022. কেসটির CNR Number হল WBCHCA-036837-2022. উক্ত কেসের বর্তমান স্ট্যাটাস হিসেবে e-court ওয়েবসাইটে দেখা যাচ্ছে যে প্রথম হিয়ারিং এর তারিখ হল- ২৯শে আগস্ট।এই কেসের পিটিশনার হলেন রাজ্য সরকারের ফিন্যান্স ডিপার্টমেন্টের প্রিন্সিপাল সেক্রেটারি এবং যার অ্যাডভোকেট হলেন পি. আগারওয়াল।

SSC Sting Operation Exclusive : রাজ্যে SSC দুর্নীতি কাণ্ডে বিস্ফোরক তথ্য!এভাবেই পশ্চিমবঙ্গে SSC

অপর দিকে রেসপন্ডেন্ট হিসেবে আছে কনফেডারেশন অফ স্টেট গভঃ এমপ্লইস ও ইউনিটি ফোরাম এবং এনাদের পক্ষের অ্যাডভোকেটেরা হলেন- আই. মিত্র, জি. মজুমদার এবং এস. দে, পি চ্যাটার্জী। আদালতের বেঁধে দেওয়া সময়ের মধ্যে ডিএ না দেওয়ায় মহাকরন অভিযান ও পেনডাউন কর্মসূচী নিয়েছে সরকারী কর্মচারী পরিষদ।

সুতরাং এবারে রাজ্য সরকারি কর্মীরা তাদের মৌলিক অধিকার নিয়ে লড়াই করার জন্য বেশ জোড়াল ভাবে প্রস্তুতি নিচ্ছে।সম্প্রতি আরও খবর যে রাজ্যের অন্যান্য সংগঠনগুলিও তাদের মতো করে নিজেদের প্রতিবাদ জানানোর জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে। এখন অপেক্ষা যে এই ডিএ মামলার তরী কোন ঘাটে গিয়ে পৌঁছায়।

রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের বক্তব্য রাজ্যের আর্জি শুনতে হাইকোর্ট রাজি হয়েছে। তবে হাইকোর্টে আগেই স্পষ্ট করে দিয়েছে যে ডিএ হল সরকারি কর্মচারীদের মৌলিক অধিকার। সেই পরিস্থিতিতে শেষ পর্যন্ত তাঁদের জয় হবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন রাজ্য সরকারি কর্মীরা।পুজোর আগে একপ্রস্থ ডিএ এর আশায় রয়েছে কর্মীরা। আর কি কোনও চান্স আছে? সেই প্রশ্নের উত্তর মিলবে আগামী ২৯শে আগস্ট।

By Probir Biswas

আমি প্রবীর বিশ্বাস Webscte.in এ সকল প্রকারের স্কলারশিপ সহ বিভিন্ন জানা-অজানা তথ্য, সাথে টেক নিউজ, বিনোদন, ব্যবসা-বানিজ্যের ওপরও বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ আপডেট দিয়ে থাকি, ধন্যবাদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.